ষড়যন্ত্র করে নির্বাচন প্রক্রিয়া বন্ধ করা যাবে না : লিটন

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২২; সময়: ৩:৩৬ pm |
ষড়যন্ত্র করে নির্বাচন প্রক্রিয়া বন্ধ করা যাবে না : লিটন

নিজস্ব প্রতিবেদক : আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, ষড়যন্ত্র করে নির্বাচন প্রক্রিয়া বন্ধ করা যাবে না। জনগণের সক্রিয় অংশগ্রহণের মাধ্যমে নির্বাচন করে আমরা প্রমাণ করতে পারবো, জনগণ আসলে নির্বাচন চায়। পেছনের দরজা দিয়ে কাউকে ক্ষমতায় নিয়ে আসতে জনগণ একমত নয়।

রাজশাহী জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনিত প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন খায়রুজ্জামান লিটন। শেষ দিন বৃহস্পতিবার দলের চেয়ারম্যান প্রার্থী ও নগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল তার মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। দুপুরে উৎসব মুখর পরিবেশে রিটানিং অফিসার ও রাজশাহী জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে মনোনয়নপত্র জমা দেয়া হয়।

খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, নির্বাচন কমিশন ইতিমধ্যে নির্বাচনের রোডম্যাপ ঘোষণা করেছে। সেই অনুযায়ী নির্বাচনের একটির পর একটি প্রক্রিয়া শুরু হতে যাচ্ছে। যদিও জাতীয় সংসদ নির্বাচনের এখনো প্রায় দেড় বছরের মতো দেরি আছে। তবুও জেলা পরিষদ নির্বাচন থেকে জাতীয় নির্বাচনের একটা আভাস আমরা পাব।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন আরও বলেন, আওয়ামী লীগ জনগণের দল, বৃহত্তম দল। জনগণের সাথে অতীতে থেকেছে, আগামীতেও থাকবে। আমরা জেলা পরিষদ নির্বাচনে যেমন জয়লাভ করবো, তেমনি আগামী সংসদ নির্বাচনে আবারো বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জয়যুক্ত হয়ে সরকার গঠন করবো ইনশাল্লাহ।

মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, রাজশাহী জেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবালের মনোনয়নপত্র দাখিল করলাম। এর মাধ্যমে নির্বাচনের প্রক্রিয়া শুরু হলো। জেলা পরিষদ নির্বাচন বর্তমানে বাংলাদেশের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি নির্বাচন। যদিও দুঃখজনক যে বিএনপি এই নির্বাচনটি বর্জন করেছে এবং আগামী নির্বাচনটিও তারা বয়কট করার ঘোষণা দিচ্ছে। কিন্তু কোন ষড়যন্ত্র করে নির্বাচন প্রক্রিয়া বন্ধ করা যাবে না।

এসময় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও বিএমডিএর চেয়ারম্যান বেগম আখতার জাহান, মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী কামাল, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অনিল কুমার সরকার মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারসহ নগর ও জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে