মালয়েশিয়া যেতে ৭৮ হাজার নয়, নেওয়া হচ্ছে ৪ লাখ টাকা

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৪, ২০২২; সময়: ৯:৪৮ am |
মালয়েশিয়া যেতে ৭৮ হাজার নয়, নেওয়া হচ্ছে ৪ লাখ টাকা

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : সাতক্ষীরার মানিক মিয়া। ঢাকায় পাঠাও চালান। কিন্তু সম্প্রতি মালয়েশিয়ায় কর্মী যাওয়া শুরু হয়েছে শুনে গ্রামে চলে যান। সেখানে এক সাব এজেন্সির মাধ্যমে মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য সকল বন্দোবস্ত করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, তার সব মিলে খরচ পড়ছে ৪ লাখ। তবে অন্যদের এর বেশি টাকা গুনতে হচ্ছে।

শুধু সাতক্ষীরার মানিক মিয়াই নন, তার মতোই ৫০ হাজার কর্মী সাড়ে ৪ লাখের বেশি টাকা দিয়ে মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য উন্মুখ হয়ে আছেন। যদিও সরকারের পক্ষ থেকে দেশটিতে যাওয়ার খরচ সর্বসাকুল্যে ৭৮ হাজার নির্ধারণ করা হয়েছে। এই টাকা নিতে নারাজ এজেন্সিগুলো।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা শহর থেকে কর্মী সংগ্রহের কাজ সাব এজেন্সিগুলো ইতোমধ্যে শুরু করে দিয়েছে। তারা জানিয়েছেন, শুধুমাত্র এজেন্সিকেই সাড়ে তিন লাখ টাকা দিতে হচ্ছে। তাদের হাতেও তো কিছু লাভ রাখতে হবে। এজন্য তারা প্রতিটি কর্মীর কাছ থেকে সাড়ে তিন লাখ টাকার উপর নিচ্ছেন। তবে সাড়ে তিন লাখের উপরের পরিমাণটা কত তা তারা জানাতে রাজি হননি।

তারা বলতে রাজি না হলেও মাঠ পর্যায়ে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মালয়েশিয়া যেতে প্রতি কর্মীকে চার লাখ টাকা গুনতে হচ্ছে। এই টাকা সংগ্রহের জন্য ইতোমধ্যে অনেকেই ফসলি জমি বিক্রি, জমি বন্ধক, হালের গরু বিক্রি, বাগানের গাছ বিক্রি, ধার দেনা করে করা এবং সুদে ঋণ নিচ্ছেন।

কথা হয় টাঙ্গাইলের এক সাব এজেন্সির এক কর্মকর্তার সাথে। নাম প্রকাশ না করা শর্তে তিনি বলছিলেন, আমরা ঢাকার এজেন্সিকেই সাড়ে তিন লাখ টাকা দিব। রাত দিন কষ্ট করে মানুষের বাড়ি বাড়ি ছুটে আমাদের কর্মীরা লোকজন সংগ্রহ করেছেন। তাদেরকেও তো টাকা দিতে হবে। সব মিলে প্রায় চার লাখ টাকা অথবা তারও বেশি নেওয়া হচ্ছে।

সাতক্ষীরার এক সাব এজেন্সির কর্ণধার জানিয়েছেন, সরকার ৭৮ হাজার টাকা নির্ধারণ করে দিলেও বাস্তবে তা দিয়ে একজন কর্মীকে কোনোভাবেই পাঠানো সম্ভব হবে না। কারণ মূল এজেন্সিগুলো তা নিতে চাচ্ছে না। তাদের ডিমান্ড প্রতিটি কর্মী ৩ লাখ ২০ আবার ৩ লাখ ৪০ হাজার টাকা দিতে হচ্ছে। আর এ টাকা তারা আদায় করছে। যদিও এই টাকার জন্য মালয়েশিয়া যেতে ইচ্ছুক ব্যক্তিকে কোনো লিখিত কাগজপত্র দেওয়া হচ্ছে না। শুধুমাত্র মৌখিকভাবেই টাকাটা নেওয়া হচ্ছে। আর তাকে বলে দেওয়া হচ্ছে, সরকারের কোনো লোক জানতে চাইলে বলবেন, আমরা ৭৮ হাজার টাকাতেই যাচ্ছি।

এদিকে খোঁজ নিয়ে আরও জানা গেছে, মালয়েশিয়া যেতে ইচ্ছুক প্রতিটি কর্মীর মেডিকেল করানো বাবদ খরচই হচ্ছে ৫ হাজার টাকা। ইতোমধ্যে ৫০ হাজার মানুষকে মেডিকেল করিয়ে রেখেছে ২৫ সিন্ডিকেটের সদস্যরা। তাদের বাহিরে যাতে অন্য কেউ কর্মী পাঠাতে না পারে তার জন্য এমন করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

অভিবাসন নিয়ে কাজ করা মাঠ পর্যায়ের একজন কর্মী বলেন, আমরা মাঠ পর্যায়ের বিভিন্ন ব্যক্তি ও সাব এজেন্সির সাথে কথা বলেছি তারা জানিয়েছে, একজন কর্মী পাঠাতে মিনিমাম সাড়ে তিন লাখ লাগবে। এর নিচে কাউকে পাঠানো সম্ভব না। যদিও দুই ব্যাচ কর্মী ইতোমধ্যে গেছে কিন্তু তারা কত টাকায় গেছেন তা জানা যায়নি।

অভিবাসী কর্মী উন্নয়নের (ওকাপ) চেয়ারম্যান শাকিরুল ইসলাম বলেন, সরকারের পক্ষ থেকে তো বলা হয়েছে ৭৮ হাজার টাকা নিতে হবে। কিন্তু আসলে তো এজেন্সিগুলো তা মানছে না। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হবে কর্মী। তারা ঋণ করে, ধারদেনা করে এই টাকা নিয়ে আসবেন। সরকারের বেধে দেওয়া নিয়মগুলো এজেন্সি মানছে কিনা তা তদারকি করা দরকার। না হলে গতবারের মতোই কর্মী পাঠাতে ইচ্ছেমাফিক টাকা আদায় করবে এজেন্সিগুলো।

ব্র্যাকের অভিবাসন বিভাগের প্রধান শরিফুল হাসান বলেন, সরকার নির্ধারিত টাকার বাহিরে যদি বেশি টাকা আদায় করা হয় এবারও গতবারের মতো অবস্থা হবে। এটি বন্ধ না করা গেলে ক্ষতিগ্রস্ত হবে মালয়েশিয়া যেতে ইচ্ছুক কর্মীরা। ইতোমধ্যে আমাদের কাছেও এমন খবর এসেছে। এটা কোনোভাবেই কেউ করতে পারে না, যারা এসব করছে তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই মন্ত্রণালয়কে ব্যবস্থা নিতে হবে।

এ বিষয়ে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন ধরেনি। তার মোবাইল থেকে অটো একটি ক্ষুদে বার্তা আসলে তার আলোকে কিছু প্রশ্ন লিখে পাঠালেও তার জবাব মেলেনি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও খবর

  • কুখ্যাত রাজাকার খলিলুর রহমান গ্রেপ্তার
  • বড়াইগ্রামে পৃথক দুই ঘটনায় শিক্ষিকা ও শিশুর মৃত্যু
  • সিংড়ায় মুয়াজ্জিন নিয়োগ কেন্দ্র করে বাড়ি ঘরে হামলা ভাংচুর
  • নলডাঙ্গার নিহত ছাত্রলীগ নেতার বাড়িতে প্রতিমন্ত্রী, এমপি ও কেন্দ্রিয় আ.লীগ নেতৃবৃন্দরা
  • সোনামসজিদ স্থলবন্দর ৬ দিন বন্ধ
  • মহাদেবপুরে নাকে খত দিয়ে শিশু ধর্ষণ চেষ্টার আপোষ
  • সিরাজগঞ্জে শিশু হত্যার দায়ে যুবকের মৃত্যুদন্ড
  • চিরকুট লিখে রাবি ছাত্রীর ‘আত্মহত্যা’, সুষ্ঠু তদন্তের দাবি
  • প্রধানমন্ত্রীর ৭৬তম জন্মদিন বুধবার
  • গৃহবধূকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় ১০ জনের যাবজ্জীবন
  • রাজশাহীসহ ২০ জেলার নদীবন্দরে সতর্কতা
  • লাইসেন্স নবায়নে বিশেষ সুবিধার ঘোষণা রাসিকের
  • করতোয়ায় নৌকাডুবি অতিরিক্ত যাত্রীর চাপে : তদন্ত কমিটি
  • মেয়েকে খাবার খাওয়াতে ‘মা রোবট’ বানালেন বাবা
  • চীনকে ‘বিশেষ’ ভূমিকায় চায় বাংলাদেশ
  • উপরে