কাজে যোগ দিলেন শতভাগ চা শ্রমিক

প্রকাশিত: আগস্ট ২৯, ২০২২; সময়: ১:১১ pm |
কাজে যোগ দিলেন শতভাগ চা শ্রমিক

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : মৌলভীবাজার জেলার সবকটি চা বাগানে সকাল থেকে দলে দলে শতভাগ শ্রমিকেরা কাজে যোগ দিয়েছেন। গতকাল রোববার সাপ্তাহিক ছুটি থাকায় অনেক বাগানেই কাজ হয়নি।

সোমবার সকালে সরেজমিনে দেখা যায়, শ্রীমঙ্গল উপজেলার ফুসকুঁড়ি, কালিঘাট, ফুলছড়া ও সাতগাঁও, জেরিনসহ জেলার সবকটি চা বাগানের শ্রমিকেরা দলে দলে কাজে যোগ দিচ্ছেন।

ফুলছড়া চা বাগানের শ্রমিক সর্দার নায়ারণ বাকতি বলেন, আজ থেকে পুরোদমে কাজে যোগ দিয়েছেন চা শ্রমিকেরা। ১৭০ টাকা মজুরিতে আমরা শ্রমিক সবাই খুশি আছি।

কালিঘাট চা বাগানের পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি অভান তাঁতি বলেন, আজ ক্যাজুয়াল ও পারর্মানেন্ট শ্রমিকেরা কাজে যোগ দিয়েছেন। কেউ ঘরে বসে নেই। সবাই খুশিতে নাচ-গান করেছেন। কেউ দ্বিমত পোষণ করেননি।

বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক নৃপেন পাল বলেন, আজ শতভাগ শ্রমিকরা কাজে গেছে। শ্রমিকেরা প্রধানমন্ত্রীর প্রতি সন্তষ্টি প্রকাশ করেছেন।

প্রসঙ্গত, দেশের ১৬৭টি চা-বাগানে শ্রমিকের সংখ্যা দেড় লাখেরও বেশি। বর্তমানে দৈনিক মজুরি ১২০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩০০ টাকা করার দাবিতে আন্দোলনে নেমেছিলেন শ্রমিকরা। গত ৯ আগস্ট এ আন্দোলন শুরু হয়।

শুরুতে প্রথম কয়েকদিন কেবল ৪ ঘণ্টা করে কর্মবিরতি পালন করা হয়। সে সময় মজুরি বৃদ্ধি ও মজুরি চুক্তি বাস্তবায়নের দাবিতে শ্রমিক ইউনিয়নগুলোর পক্ষ থেকে বাগান মালিকদের সাত দিনের আলটিমেটাম দেওয়া হয়।

কিন্তু মালিক পক্ষ এ সময়ের মধ্যে বৈঠক বা সমঝোতায় না আসায় ১৩ আগস্ট থেকে লাগাতার পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন শুরু করেন শ্রমিকরা। স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জেলা প্রশাসক দফায় দফায় বৈঠক করেও কোনো সমাধান হচ্ছিল না।

সর্বশেষ ২৭ আগস্ট রাতে প্রধানমন্ত্রী বাগান মালিকদের সঙ্গে বৈঠকে বসে নতুন মজুরি ১৭০ টাকা নির্ধারণ করেন। এরপরে কাজে ফেরার আশ্বাস দেন চা-শ্রমিকরা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে