ভর্তিচ্ছুদের সহযোগিতায় ইবি শাখা ছাত্রলীগ

প্রকাশিত: আগস্ট ১৩, ২০২২; সময়: ৮:৩২ pm |
ভর্তিচ্ছুদের সহযোগিতায় ইবি শাখা ছাত্রলীগ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ইবি : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) গুচ্ছ অন্তর্ভূক্ত মানবিক বিভাগের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় বিভিন্ন সেবার মাধ্যমে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সহযোগিতা করেছে ইবি শাখা ছাত্রলীগ।

শনিবার (১৩ আগস্ট) সকাল থেকে পরীক্ষার্থীদের অসুবিধা দূর করার জন্য ক্যাম্পাসের বিভিন্ন জায়গায় শিক্ষার্থী বান্ধব কার্যক্রম পালন করে ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।

সরেজমিনে দেখা যায়, পরীক্ষার্থীদের মাঝে কলম, মাস্ক, সুপেয় পানি সরবরাহের পাশাপাশি তারা প্রধান ফটকে অভিভাবকদের বিশ্রামের ব্যবস্থা করেন। এছাড়াও পরীক্ষার হলে নেওয়ার অনুপযোগী শিক্ষার্থীদের ব্যবহৃত এমন জিনিসপত্র নিরাপদে রেখে ও তাদের পুনরায় বুঝিয়ে দেয়ার ব্যবস্থা, প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের জন্য হুইলচেয়ার ও প্রয়োজনীয় লজিস্টিক সরবরাহ এবং অভিভাবকদের বিশ্রামের ব্যবস্থা ও তাৎক্ষণিক চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম সরবরাহ করেছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ। ছাত্রলীগের এমন কর্মকাণ্ডে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা।

এ বিষয়ে ইবি শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নাসিম আহমেদ জয় বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে আগত ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকদের জন্য সুপেয় পানির ব্যবস্থা করা হয়েছে। অভিভাবকদের বিশ্রাম কেন্দ্রের ব্যাবস্থা, শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে এসে এবং তাদের অভিভাবকরাও যদি অসুস্থ হয়ে পড়ে সেক্ষেত্রে প্রাথমিক চিকিৎসার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। আমরা ইতিমধ্যে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে আসা শিক্ষার্থীদের মাঝে মাস্ক, কলম বিতরণ করেছি এবং শিক্ষার্থীদের সহায়তার জন্য আমাদের কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।

শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ফয়সাল সিদ্দিকী আরাফাত বলেন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সবসময়ই শিক্ষার্থীদের পক্ষে এবং শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবি নিয়ে কথা বলে। আজ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা উপলক্ষে প্রধান ফটকে আমরা অভিভাবক কর্ণার স্থাপন করেছি যাতে করে দূর-দূরান্ত থেকে আগত অভিভাবকরা বিশ্রাম নিতে পারে, আমরা জয় বাংলা বাইক সার্ভিসের ব্যবস্থা করেছি।

যারা প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী আছে তাদের সহযোগিতার জন্য আমরা লজিস্টিক সাপোর্টের ব্যবস্থা করেছি। যে ভবনগুলোতে পরীক্ষা হচ্ছে সে ভবনগুলোর পাশে ছাত্রলীগের বিভিন্ন হলের যারা নেতাকর্মী রয়েছেন তারা বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে থেকে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের সহায়তা করছে। আমরা মনে করি বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা পরীক্ষার্থীদের জন্য যে সেবা চালু রেখেছে তাতে করে সাধারণ শিক্ষার্থীরা উপকৃত হচ্ছে এবং আমরা আগামী ভর্তি পরীক্ষায়ও আমাদের সার্ভিস চালু রাখবো।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে