সোনামসজিদ বন্দরে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় দুটি তদন্ত কমিটি গঠন

প্রকাশিত: জুলাই ১৭, ২০২২; সময়: ৬:৪৭ pm |
সোনামসজিদ বন্দরে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় দুটি তদন্ত কমিটি গঠন

নিজস্ব প্রতিবেদক, শিবগঞ্জ : দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম সোনামসজিদ স্থলবন্দরের পানামা সোনামসজিদ পোর্ট লিংক লিমিটেডের ইয়ার্ডের ভেতরে ভারতীয় পণ্যবাহী ট্রাকে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট দেবেন্দ্র নাথ উরাঁওয়ের নেতৃত্বে ১০ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি ও সোনামসজিদ স্থলবন্দর শুল্ক স্টেশনের পক্ষ থেকে আরও একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। ইতোমধ্যে তদন্ত কার্যক্রম শুরু হয়েছে। রোববার এ তথ্য জানান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল হায়াত।

জানা গেছে, সোনামসজিদ স্থলবন্দর শুল্ক স্টেশন, বিজিবি, পানামা, সিঅ্যান্ডএফ ও আমদানিকারক গ্রুপের যৌথ সমন্বয়ে ব্লিচিং পাউডারের নমুনা সংগ্রহ করে বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণাগার রাজশাহীতে পাঠানো হয়েছে। সংগ্রহ করা নমুনার পরীক্ষার রিপোর্ট আসলে প্রকৃত ঘটনা উন্মোচন হবে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে ব্লিচিং পাউডার আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান জাহাঙ্গীরনগর সিন্ডিকেটের পরিচালক ইসতিয়াক আহমেদ নবাব বলেন, ব্লিচিং পাউডার বিষ্ফোরণের এটি নতুন ঘটনা নয়। তবে সোনামসজিদ বন্দরে প্রথম। এর আগে বেনাপোল বন্দরে ৬টি ট্রাকে আগুন লেগেছে। ব্যবসায়ী ও পূর্ব শত্রুতার জেরে ২০১৪ সালের ২৪ অক্টোবর শিবগঞ্জ স্টেডিয়ামের কাছে পরিকল্পিতভাবে আমার পিতা মনিরুল ইসলামকে গুলি করে হত্যা করা হয়।

২০১৯ সালের ২০ জুন এ হত্যা মামলার রায়ে ৯ জনের মৃত্যুদন্ড, ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডাদেশ দেন আদালত। তবে, উচ্চ আদালতে আসামিরা আপিলের জন্য রায় কার্যকর আদেশ অপেক্ষামান। কিন্তু মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামি সিরাজুল ইসলাম মুন্সির ভাতিজা ইসমাইল হোসেন পারিবারিকভাবে হেয়পন্ন করতে ও বন্দরের ব্যবসাকে ক্ষতির লক্ষে ব্লিচিং পাউডারকে গানপাউডার বলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করে গুজব ছড়িয়েছেন।

অভিযুক্ত ইসমাইল হোসেন বলেন, আমি কোন ব্যবসায়ী না, আমি একজন সাধারণ মানুষ। বন্দরে ট্রাকে আগুন লাগানো দেখে একজন মানুষ হিসেবে খারাপ লেগেছে। বিষয়টি জনগণের কাছে জানতে ওই স্ট্যাটাস দিয়েছি। আমাকে কেউ স্ট্যাটাস দিতে বলেনি।

সোনামসজিদ স্থল শুল্ক স্টেশনের সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার বিশ্বশর্ম্মা জানান, গত ১৩ জুলাই পানামার অভ্যন্তরে ভারতীয় পণ্যবাহী ট্রাকে অগ্নিকান্ডের ঘটনায় তদন্ত শুরু হয়েছে। ভারতীয় ব্লিচিং পাউডার বোঝাই ট্রাকে আগুন লাগানো এটি নতুন কিছু না। তবে এ বন্দর নতুন ঘটনা। এর আগে বেনাপোল ও চট্টগ্রাম বন্দরেও অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। তবে কি কারণে এ বন্দরে অগ্নিকান্ড হয়েছে, তা এখনো স্পষ্ট নয়।

ব্লিচিং পাউডারের নমুনা সংগ্রহ করে বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণাগার রাজশাহীতে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট পেলে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল হায়াত জানান, অগ্নিকান্ডের ঘটনায় জেলা পর্যায়ে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট দেবেন্দ্র নাথ উরাঁওয়ের নেতৃত্বে ১০ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কিছু বলা যাবে না।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও খবর

  • বাগমারায় সিভিল ড্রেসে আসামী ধরতে গিয়ে হামলার শিকার র‌্যাব সদস্য
  • মায়ের মাথায় গুলি চালালেন ছেলে
  • স্ত্রীর মামলায় পুলিশ কর্মকর্তার কারাদণ্ড
  • রাজশাহীর বিভিন্ন সড়ক ও গুরুত্বপূর্ণ মোড়ের নামকরণের উদ্যোগ
  • কাশ্মীরে বাস খাদে পড়ে ৬ সীমান্ত পুলিশ নিহত
  • সিআইডি প্রধান হলেন মোহাম্মদ আলী মিয়া
  • ক্রিমিয়ায় বিস্ফোরণে কেঁপে উঠলো রুশ সামরিক ঘাঁটি
  • বাড়ার তুলনায় না কমলেও, কমেছে ডলারের দাম
  • গুচ্ছের ‘খ’ ইউনিটের ফল প্রকাশ
  • উত্তরা দুর্ঘটনায় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান শতভাগ দায়ী: সড়ক পরিবহন সচিব
  • গার্ডার পড়ে নিহত রুবেলের মরদেহ নিয়ে ৭ স্ত্রীর ‘টানাটানি’
  • মধ্যবয়সে সূর্য, ভবিষ্যতে কী হবে বললেন বিজ্ঞানীরা
  • স্ত্রীকে গলা টিপে হত্যায় স্বামীর যাবজ্জীবন
  • তেলের সাথে পানি মেশানোয় পাম্প মালিককে জরিমানা
  • পরিত্যক্ত বাড়িতে মিললো স্কুলছাত্রের মরদেহ
  • উপরে