শহিদ নজমুল হক বিদ্যালয়ে স্যানিটেশন কমপ্লেক্সের উদ্বোধন

প্রকাশিত: জুন ১৬, ২০২২; সময়: ১০:৩৭ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : কম্পোজিট একশনস ফর ক্লাইমেট মাইগ্রেন্টস ইন আরবান স্লাম প্রকল্পের আওতায় শহিদ নজমুল হক বিদ্যালয়ে স্কুল স্যানিটেশন কমপ্লেক্সের উদ্বোধন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এটির উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবী শাহীন আকতার রেনী।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শাহীন আকতার রেনী বলেন, আগামী প্রজন্মকে সুশিক্ষায় শিক্ষিত করার জন্য প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অনুকুল পরিবেশ নিশ্চিত করা দরকার, সেদিক থেকে চিন্তা করলে একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উন্নত স্যানিটেশন, নিরাপদ পানিরব্যবস্থা ও স্বাস্থ্যগত আচরণ পালনের ব্যবস্থা থাকা অত্যন্ত জরুরি। পাশাপাশি যে সমস্ত স্কুলে মেয়েরা লেখাপড়াকরে, সে সমস্ত স্কুলে ঋতুকালীন স্বাস্থ্যব্যবস্থা সমৃদ্ধ ল্যাট্রিন থাকা অত্যন্ত জরুরী। সেদিক থেকে চিন্তা করলে রাজশাহী বিভাগে এই প্রথম এ ধরনের উন্নত স্যানিটেশন কমপ্লেক্স, নিরাপদ পানির ব্যবস্থা ও হাত ধোয়ার ব্যবস্থা স্থাপন করার জন্য ওয়াটার এইড বাংলাদেশ ও ভার্ককে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

শহীদ নজমুল হক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: আব্বাস উদ্দীন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিটি কর্পোরেশনের ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল মমিন, চীফ কমিউনিটি ডেভেলপমেন্ট অফিসার আজিজুর রহমান, ওয়াটার এইড বাংলাদেশের প্রজেক্ট ম্যানেজার সাঈফ মনজুর, জোনাল কো-অর্ডিনেটর মোহাম্মদ রেজাউল হুদা মিলন, রাজশাহী জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ওয়াহেদুন নবী অনু।

ক্লাইমেট ব্রিজ ফান্ড (সিবিএফ) ও ওয়াটার এইড বাংলাদেশ এর অর্থায়নে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের সহযোগিতায় স্কুল স্যানিটেশন কমপ্লেক্স নির্মাণ কাজটির বাস্তবায়নকারী প্রতিষ্ঠান ভিলেজ এডুকেশন রিসোর্স সেন্টার (ভার্ক)। রাজশাহী মহানগরীতে স্কুল পর্যায়ে স্যানিটেশন কার্যক্রম সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার লক্ষ্যে এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে ওয়াটার এইড বাংলাদেশ। ঋতুকালীন স্বাস্থ্যাভ্যাস ব্যবস্থাপনা দিবসকে সামনে রেখে শহীদ নজমুল হক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে আজ স্কুল স্যানিটেশন কমপ্লেক্স উদ্বোধন করা হয়। একই সাথে ও সিডিসি টাউন ফেডারেশন বরাবর ২টি মোবাইল টয়লেট হস্থান্তর করা হয়।

উল্লেখ্য যে, স্কুল স্যানিটেশন কম্পেøক্সে ৮টি সাধারন টয়লেট চেম্বার, ২টি ঋতুকালীন ব্যবস্থাপনা সমৃদ্ধ ও প্রতিবন্ধী বান্ধব টয়লেট চেম্বারের পাশাপাশি ১টি প্রসাধনী কক্ষ বিদ্যরাজমান।

এ ছাড়া কভিড ১৯ অবস্থা বিবেচনায় এনে ২টি হ্যান্ডওয়াশিং স্টেশন ও ২টি নিরাপদ খাবার পানির স্টেশন নির্মান করা হয়েছে যেখানে হ্যান্ডওয়াশিং প্রতিটি স্টেশনে একই সাথে ও একই সময়ে ৮ জন ব্যবহারকারী হাত ধৌত করতে পারবে এবং নিরাপদ পানির খাবার স্টেশন হতে একই সাথে ও একই সময়ে ৮ জন নিরাপদ পানি সংগ্রহ ও পান করতে পারবে। স্কুল স্যানিটেশন কম্পেøক্সটি উদ্বোধনের মাধ্যমে এখন থেকে প্রায় ২৫০০ ছাত্রী, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারী আধুনিক ওয়াশফ্যাসিলিটি স্বাচ্ছন্দে ব্যবহার করতে পারবে। এই স্কুল স্যানিটেশন কম্পেøক্স নির্মান প্রকল্পে মোট ব্যায় হয়েছে ১১ লাখ ১১ হাজার ৬২৭ টাকা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও খবর

  • ১০২ বছরে ঢাবি, ১০২ পাউন্ডের কেক কাটলেন উপাচার্য
  • রুয়েটে তিনদিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কর্মশালা শুরু
  • রাবি’র বার্ষিক প্রতিবেদন প্রকাশিত
  • চুয়েটে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মানববন্ধন
  • ঢাবিতে ক্লাস চলাকালীন নিষিদ্ধ গান-বাজনা, বাতিল ‘র‍্যাগ ডে’
  • ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে রাবির সেই শিক্ষার্থী গ্রেপ্তার
  • ইবিতে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মাঝে সিআরসি’র ঈদ উপহার বিতরণ
  • রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থাভাবে ব্যাহত মানসম্মত গবেষণা
  • রাবিতে শিক্ষিকাকে হেনস্তা করায় শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার
  • রাবিতে ভর্তির চূড়ান্ত আবেদন করেছে ১ লাখ ৭৮ হাজার শিক্ষার্থী
  • ইবির তারুণ্য’র নির্বাচন ও সুবাসিত সদস্য সংবর্ধনা
  • ফ্রিল্যান্সিং করে ববি শিক্ষার্থীর আয় অর্ধ কোটি টাকা
  • রাবি শিক্ষার্থীদের জন্য বীমা সুবিধা চালু
  • রুয়েটে মাদক ও ধুমপান মুক্ত ক্যাম্পাস গড়তে র‌্যালি
  • ইবির সাতক্ষীরা জেলা ছাত্রকল্যাণ সমিতির নেতৃত্বে সাইমুম-মোস্তাফিজ
  • উপে