ত্বকের প্রয়োজনীয় সানস্ক্রিন যেভাবে বেছে নেবেন

প্রকাশিত: মে ২৬, ২০২২; সময়: ১:৪৯ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : বাইরে যে পরিমাণ রোদের তেজ সানস্ক্রিন ছাড়া একেবারেই বেরনো দায়। সহজেই মুখে কালো দাগ, লাল ছোপ এবং তারসঙ্গে জ্বলুনি তথা ট্যান। সূর্যের আলো থেকে ত্বককে রক্ষা করতে প্রয়োজন সঠিক এসপিএফ যুক্ত সানস্ক্রিন। নইলে ত্বকের একেবারেই বারোটা বাজবে।

এই প্রসঙ্গে বিশেষজ্ঞ এবং ডার্মাটোলজিস্ট মেঘনা গুপ্তা বলছেন, স্কিনের প্রয়োজনে অন্তত এই সময় প্রতিদিন সানস্ক্রিন লাগানো উচিত। সূর্যের তাপে এর অবস্থা সহজেই খারাপ হতে পারে। সঠিকভাবে এটিকে ব্যবহার করলে সেটি ভালো প্রমাণিত হতে পারে। শুধু সূর্যের হাত থেকেই নয় বরং, অল্পেই ত্বক বুড়িয়ে যাওয়া ছাড়াও, স্কিন জ্বলে যাওয়া, স্কিনের রং পরিবর্তন এবং ত্বকের ক্যান্সার থেকেও বাঁচাতে পারে।

এসপিএফ বুঝেই সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন

গরমের মাত্রা ও সূর্যের তেজকে মাথায় রেখেই কিন্তু সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হবে। যেখানে যত তাপমাত্রা বেশি সেখানে আরো বেশি এসপিএফ যুক্ত ক্রিম ব্যবহার করা উচিত। তবে বাইরে বেশি রোদে ঘোরাঘুরি করলে অবশ্যই যেটা করতে হবে এই ক্রিম আরো বেশি করে লাগাতে হবে। তাহলে সূর্যের তাপ থেকে ত্বককে বাঁচানো যাবে।

সানস্ক্রিন বেশি মাত্রায় লাগালে সূর্যের আলোর শুধু ইউভি রশ্মি নয় বরং এর দিনের শেষের লাল আভা এবং ব্লু রে এগুলির থেকেও অনেকটা রেহাই মেলে।

স্থান অনুযায়ী এসপিএফ এর মাত্রা কমানো বাড়ানো উচিত?

বিশেষজ্ঞ বলছেন, কোস্টাল থেকে মরুভূমি এবং সমভূমি সর্বত্রই কিন্তু তাপমাত্রা মোটামুটি একই থাকে। তাই এসপিএফ ৩০ এর ওপর কিংবা তার বেশি হলেই ভালো।

মিনারেল নাকি কেমিক্যাল কোনটা ভালো?

মিনারেল সানস্ক্রিন কিন্তু সত্যিই ভালো। এটি স্কিনে জেল আকারে থাকে। আর শুকনো ভাব এতে কম থাকে। সুতরাং খেয়াল রাখতে হবে সঠিক পরিমাণে যেন এটি সঠিক মাত্রায় ব্যবহার করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপে