নিরাপত্তা বাহিনী সারাক্ষণ সানগ্লাস পরে থাকে কেন?

প্রকাশিত: মে ১৭, ২০২২; সময়: ১০:১১ am |
নিরাপত্তা বাহিনী সারাক্ষণ সানগ্লাস পরে থাকে কেন?

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : টিভির পর্দায় বা সামনাসামনি কোনো বিশিষ্ট ব্যক্তিকে দেখেছেন? রাজনীতিবিদ, শিল্পপতি, খেলোয়াড়, গায়ক বা নায়ক-হেভিওয়েট যেকোনো ব্যক্তির ঠিক পেছনেই থাকেন তাদের ব্যক্তিগত বডিগার্ড বা দেহরক্ষীরা।

সুঠাম দেহের এসব ব্যক্তিরা থাকেন স্যুটেড বুটেড হয়ে। তাদের চোখ ঢাকা থাকে কালো রোদচশমা বা সানগ্লাসে। কেবল তারা নয়, নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদেরও কালো সানগ্লাস পরে থাকতে দেখা যায়।

প্রশ্ন জাগে, কেন তারা সবসময় সানগ্লাস পরে থাকেন। রাতের বেলায়ও তাদের চোখ ঢাকা থাকে গ্লাসে। কেন তারা এমনটা করেন? কেবল ফ্যাশনের জন্য? নাকি অন্য কোনো কারণ রয়েছে?

সৌন্দর্য বাড়ানোর জন্য সানগ্লাস পরেন না নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এর সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে নিরাপত্তার বিষয়টি। প্রশিক্ষণের সময়ই তাদের এ বিষয়ে সচেতন করা হয়।

হামলাকারীকে বিভ্রান্ত করা : নিরাপত্তা কর্মীরা সবসময় পুরো এলাকা নজরদারিতে রাখেন। সানগ্লাস পরে থাকায় হামলাকারী তার দৃষ্টি দেখতে পারে না। ফলে সে বিভ্রান্ত হয়। সানগ্লাস পরায় কোনো ব্যক্তির আকস্মিক চলাফেরা সহজে নিরাপত্তা কর্মীর চোখে ধরা পড়ে।

অবাঞ্চিত বস্তু থেকে রক্ষা করা : ধরুন খোলা মাঠে নিরাপত্তা কর্মীকে দাঁড়িয়ে থাকতে হচ্ছে। সেখানে প্রচণ্ড ধুলাবালি। এর সুযোগ নিতে পারে হামলাকারী। সানগ্লাস পরায় ধুলাবালি, কুয়াশার মতো অবাঞ্চিত বস্তু থেকে নিরাপত্তা কর্মী রক্ষা পান। নিজের দায়িত্ব গুরুত্বের সঙ্গে পালন করতে পারেন।

বিস্ফোরণ থেকে চোখকে রক্ষা করা : যেকোনো সময়ই বিপদ ঘটতে পারে। কখনো বিস্ফোরণের মতো ঘটনা ঘটলে নিরাপত্তা কর্মীর চোখ যেন সুরক্ষিত থাকে তার জন্য সানগ্লাস ব্যবহার করা হয়। তাদের এই চশমাগুলো তৈরি হয় বিশেষভাবে যেন বিস্ফোরণেও তা অক্ষত থাকে। এই কারণে আর্মিদের মিশনের সময় হাই এন্ড সানগ্লাস দেওয়া হয়।

মনস্তাত্ত্বিক কারণ : হঠাৎ আপনার সামনে কোনো বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটলে সবার প্রথমে কোন কাজটি করবেন? নিশ্চিত কয়েক সেকেন্ডের জন্য চোখ বন্ধ করে ফেলবেন। এই ব্যাপারটি খুব স্বাভাবিক। অনাকাঙ্ক্ষিত বিপদে আমাদের মস্তিষ্ক আর মন এভাবেই কাজ করে। কিন্তু একজন নিরাপত্তা কর্মীর জন্য কয়েক সেকেন্ডও বেশ গুরুত্বপূর্ণ। এই ক্ষুদ্র সময়েই আততায়ী হামলা চালাতে পারেন। সানগ্লাস পরে থাকায় এমন ঘটনা থেকে নিরাপদ থাকেন নিরাপত্তা কর্মী। বিপদের সময়ও তিনি চোখ খোলা রাখতে সক্ষম হন।

আবেগ লুকানোর জন্য : আমাদের মতো নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরাও মানুষ। তাদেরও আবেগ আছে। কিন্তু কঠোর দায়িত্ব পালন করতে গেলে তো আবেগ দেখানো যায় না। সানগ্লাস পরে থাকলে তারা সহজে নিজের আবেগ লুকাতে পারেন। কোনো পরিস্থিতিতে অবাক হলে বা ভয় পেলে তার অভিব্যক্তি আড়াল করতে পারেন।

ফ্ল্যাশ লাইট বা সূর্যরশ্মি থেকে রক্ষা : কালো সানগ্লাস নিরাপত্তা কর্মীর চোখকে সরাসরি সূর্যের এবং ফ্ল্যাশ লাইটের আলো থেকে রক্ষা করে। সাধারণত এসব আলোর কারণে চোখের পলক ফেলতে বাধ্য হই আমরা। তাদের যেন তা করতে না হয় সেজন্য সানগ্লাস পরে থাকেন। এতে দীর্ঘসময় চোখ খুলে রাখতে সক্ষম হন তারা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে