নাটক জমিয়ে বিদায় ভারতের, ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

নাটক জমিয়ে বিদায় ভারতের, ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

প্রকাশিত: ১০-০৭-২০১৯, সময়: ২০:১৬ |
Share This

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : প্রথম দল হিসেবে ভারতকে হারিয়ে ফাইনালে উঠল নিউজিল্যান্ড। ভারতকে তারা ১৮ রানে হারায়।

শুরুতে ৪ উইকেটের মহা বিপর্যয়ের মুখ থেকে পান্ডিয়া-পান্ট জুটি দলকে টেনে তুলার চেষ্টা করেন। তাদের হাত ধরে ভারত দলীয় অর্ধশতক পার করে। পান্ট আউট হলে মাঠে আসেন ধোনী । ভাবা হচ্ছিল ধোণী-পান্ডিয়া জুটিতে ভারত কিছু একটা করে দেখাতে পারবে। কিন্তু পান্ডিয়ার আউটে সেটা আনেকটা আশা ভঙ্গে পরিণত হয়। কিন্তু এরপরই দলের হাল ধরেন ধোনী ও জাদেজা।

বৃষ্টি বিঘ্নিত খেলার রিজার্ভ ডেতে বাকি ইনিংস খেলতে নেমে বেশিদুর এগোতে পারেনি নিউজিল্যান্ড। প্রথম দিনের মতো আজও শেষের ৪ ওভার স্বচ্ছন্দে ছিলনা কিউই ব্যাটসম্যানরা। ফলাফল নির্দিষ্ট ৫০ ওভার শেষে ৮ উইকেটে ২৩৯ রানের সামান্য পুঁজি পায় তারা।

এ রান ভারতের ব্যাটিং লাইনের সামনে কিছুই ছিল না। কিন্তু ২৪০ রান তাড়া করতে নেমে শুরুতেই ৬ রানে তারা হারায় তিন তিনটি বড় উইকেট। রোহিত শ্বর্মা, লোকেশ রাহুল, বিরাট কোহলি ফিরে যান ১ রান করে। তিন উইকেট হারিয়ে ভারত অনেকটাই বিপর্যয়ের মুখে পড়ে। হাল ধরেন দিনেশ কার্তিক ও রিশাব পান্ট। ম্যাট হ্যানরি সে মুহুর্তে আবারো দিনেশকে তুলে নিলে আরো বিপদে পড়ে যায় ভারত। এরপর রিশাব পান্টকে ৩২ রানে ফেরান সান্টনার। একই রানে সান্টনারের বলে আউট হন হার্দিক পান্ডিয়াও।

আগেরদিন শুরুতে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। নক-আউট পর্বে এসে প্রথম সেমিফাইনালে ভারতের মুখোমুখি তারা।

ম্যানচেস্টারে ওল্ড ট্রাফোর্ডে ওপেনিংয়ে নেমে শুরুতে দুই ওভার ৪ বল খেলেও রানের খাতা খুলতে ব্যর্থ হন মার্টিন গাপটিল ও হেনরি নিকোলাস। এর পর হেনরি নিকোলাস ২৮ , কেন উইলিয়ামসন ৬৭ ও রস টেইলরের ৭৪ রানে ভর করে কিউইরা ৫০ ওভার শেষে ৮ উইকেটে ২৩৯ রান করতে সমর্থ হয়।

ভারতের হয়ে জাসপ্রিত ভোমরা সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নেন।

টিকে থাকার লড়াইয়ে এক পরিবর্তন নিয়ে মাঠে নামে ভারত-নিউজিল্যান্ড। নিউজিল্যান্ড একাদশে ঢুকেছেন পেসার লোকি ফার্গুসন। বাদ পড়েছেন আরেক পেসার টিম সাউদি।

ভারতের হয়ে খেলছেন রিস্ট স্পিনার যুজবেন্দ্র চাহাল। তাকে জায়গা দিতে বেঞ্চে বসে থাকতে হচ্ছে আরেক রিস্ট স্পিনার কুলদীপ যাদবকে।

আজকের খেলায় যে জয়লাভ করবে তারা সরাসরি চলে যাবে এবারের বিশ্বকাপের ফাইনালে।

উপরে