গোদাগাড়ীতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরিচালকের ঝটিকা অভিযান

গোদাগাড়ীতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরিচালকের ঝটিকা অভিযান

প্রকাশিত: ২২-০৭-২০১৯, সময়: ১১:১১ |
Share This

জেষ্ঠ্য প্রতিবেদক, রাজশাহী : রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলা রাজাবাড়ী ডিগ্রী কলেজে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা রাজশাহী অঞ্চলের পরিচালক ড. মো: কামাল হোসেনের ঝটিকা অভিযান করেছেন।

রোববার দুপুর ১২ টার সময় তিনি কলেজে প্রবেশ করেন দেরীতে কলেজে উপস্থিত হওয়ায় শিক্ষক হাজিরা খাতায় ৪ জনের স্বাক্ষরের ঘরে লাল কালির চিহ্ন দিয়ে ১ দিনের বেতন কাটার নির্দেশ প্রদান করেন।

বিষয়টি গোদাগাড়ী শিক্ষা প্রতিষ্ঠনের শিক্ষক কর্মচারীদের মাঝে টক অফ দ্যা টাউনে পরিনত হয়।

রাজাবাড়ী কলেজের হাজিরা খাতায় যে সব শিক্ষক, কর্মচারী হাজিরা খাতায় লাল কালি দিয়েছে তারা হলেন, শরীর চর্চা শিক্ষক মো: কামরুজ্জামান, ভূলোগ বিভাগের শিক্ষক মোসা: শাহিনুর পারভীন, আয়া মোসা: শাহানাজ খাতুন ও চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারী হাবিবুর রহমান হাবু।

ওই কলেজের বাংলা বিভাগের প্রভাষক বুলবুল আহম্মেদ বলেন, পরিচালক স্যার দীর্ঘ সময় কলেজের অবস্থান করেন, আমার ক্লাস টি দেখেন। দেরীতে কলেজে আসায় ৪ জনের স্বাক্ষরের ঘরে লাল কালির চিহ্ন দেন। বেতন কাটার নির্দেশ দেন। লিখিত জবাব চেয়েছেন।

গত শুক্রবার রাজশাহী জেলা পরিষদ এএইচএম কামারুজ্জামান মিলনায়তনে প্রধান অতিথি হিসেবে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর ড. সৈয়দ মো: গোলাম ফারুক দিক নির্দেশনা মূলক বক্তব্য প্রদান করার পরপরই পরিচালক ড. মো: কামাল হোসেনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ঝটিকা অভিযান করায় অফ ডে খোর, হাফ ডে খোর শিক্ষকদের মাঝে আতংক বিরাজ করে।

যারা কলেজে না এসে বাড়ীতে অবস্থান করছিলেন কিংবা কলেজ ত্যাগ করে বাড়ী চলে গিয়েছিলেন তারা দ্রুত আবার কলেজে এসে স্বাক্ষর করেন। নির্দেষ্ট সময় পর্যন্ত কলেজে অবস্থান করে কলেজ ত্যাগ করেন।

রাজাবাড়ী ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ সেলীম রেজা বলেন, আমি কলেজের অধিভুক্তির কাজে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে গাজীপুরে অবস্থান করচ্ছি। পরিচালক স্যার কলেজে গিয়েছেন, যারা দেরীতে এসেছেন তাদের ১ দিনের বেতন কাটার নির্দেশ দিয়েছেন। তিনি আরও বলেন, ভূগোল বিভাগের প্রভাষক শাহিনুর পারভীন ছুটি নিয়ে গত কাল ১টি অপারেশন করে রাজশাহী পপুলার হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলোতে শিক্ষার গুণগত মান বৃদ্ধি ও পাবলিক পরীক্ষায় ভাল ফলাফলের জন্য ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী অভিভাবক, সচেতনমহল এ অভিযান অব্যাহত রাখার জন্য উদ্ধর্তন কতৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন

Leave a comment

উপরে