বাঘার এসএসসি পরীক্ষার্থী আলিফের সংসার চলে ভ্যানের চাকায়

প্রকাশিত: ৩১-০১-২০১৯, সময়: ২৩:২৪ |
Share This

নিজস্ব প্রতিবেদক : যাত্রী নিয়ে যাচ্ছে আলিফ হোসেন। এবার সে এসএসসি পরীক্ষা দেবে। সে ভ্যান চালিয়ে চার সদ্যসের সংসার চালায়। সংসারে একমাত্র আয়ের উৎস্যকারী আলিফ হোসেন। তকিনগর আইডিয়াল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে সে এসএসসি পরীক্ষা দেবে। তার পরীক্ষা শুরু হবে ২ ফেব্রুয়ারি থেকে। অভাবের সংসার। পড়ালেখার পাশাপাশি আলিফকে রোজগার করতে হয়।

আলিফ হোসেন রাজশাহীর বাঘা উপজেলার আড়ানী পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের নুরনগর খয়েরমিল গ্রামের আখ ক্রয় কেন্দ্রের পেছনে বাবা, মা ও ছোট বোন নিয়ে বসবাস করে। তার বাবা আমিরুল ইসলাম। তার বাড়ির ভিটা ছাড়া কোনো জমি নেই।

আলিফ হোসেনের বাবা শারীরিক অসুস্থতার কারণে কাজ করতে পারে না। এজন্য তাকে সংসারের হাল ধরতে হয়েছে। সে পড়ালেখার পাশাপাশি ভ্যান চালায়। স্কুলে ভর্তি হলেও নিয়মিত ক্লাস করতে পারেনি।

আলিফ জানায়, বাবার কোনো জমিজমা নেই। আড়াই কাঠা জমির ওপর বাড়ি। এক ঘরে আমি ও অন্য ঘরে বাবা-মা ও ছোট বোন থাকে। বাবার শরীরটা ভালো না। সংসারে আমি যা রোজগার করি তা দিয়ে সংসার চলে। পাশাপাশি লেখাপড়া করছি। এছাড়া আড়ানী স্টেশন বাজরের কয়েকটি কাপ নিয়ে মা চা বিক্রি করেন। এখানকার কিছু আয় থেকে ও আমার রোজগারের ওপর সংসার চলে। তবে কেউ আর্থিকভাবে সহযোগিতা করলে ভ্যান চালানো বাদ দিয়ে মায়ের চায়ের দোকান বড় করলে আর ভ্যান চালানো লাগত না বলে জানায় সে।

আলিফ আরও জানায়, তবে শত কষ্ট করেও লেখাপড়া চালিয়ে যাচ্ছি। অভাব-অনটনের কারণে ঠিকমতো ক্লাস করতে পারিনি। তবে পরীক্ষার প্রস্তুতি ভালো আছে। আশা করছি পরীক্ষা ভালো হবে।

নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার তকিনগর আইডিয়াল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ মকবুল হোসেন বলেন, আলিফ হোসেন নম্র ও বিনয়ী। সে লেখাপড়ার পাশাপাশি ভ্যান চালায়। ছাত্র হিসেবে ভালো।

আড়ানী পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোজাম্মেল হক রাজ বলেন, আলিফ হোসেনের পরিবারকে পৌরসভা থেকে সহযোগিতা করার সাধ্যমতো চেষ্টা করি।

উপরে