নাটোর হাসপাতালে ডেঙ্গু পরীক্ষার কীট সংকট

নাটোর হাসপাতালে ডেঙ্গু পরীক্ষার কীট সংকট

প্রকাশিত: ০৩-০৮-২০১৯, সময়: ১৬:৫৩ |
Share This

নিজস্ব প্রতিবেদক, নাটোর : নাটোরে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বাড়তে শুরু করেছে। সিংড়ায় একজনকে সনাক্ত করা হয়েছে। এ পর্যন্ত জেলায় প্রায় অর্ধ শতাধিক ডেঙ্গু রোগী সনাক্ত হয়েছে। ঢাকা থেকে আসা রোগী ছাড়া স্থানীয়রাও ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হওয়ায় শংকিত হয়ে পড়ছেন অভিভাবকরা। এদিকে নাটোর সদর হাসপাতালে বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১০ জন রোগী। শনিবার সকাল থেকে দুপুর ১ টা পর্যন্ত ৪জনকে ভর্তি করা হয়েছে। নাটোর সদর হাসপাতালে এ পর্যন্ত চিকিৎসা নিয়েছেন ১৬ জন রোগী।

এদিকে শহরের বেসরকারী সততা ক্লিনিকে শনিবার আরও ২ জন সনাক্ত হয়েছে। এ পর্যন্ত ওই ক্লিনিকে সনাক্তের সংখ্যা ২৩ জন। তবে আতংকের কারণ হলো স্থানীয় পর্যায়ে ডেঙ্গুয় আক্রান্ত হওয়া। ঈদের ছুটিতে ঢাকা থেকে মানুষ এলাকায় আসলে এর পরিমাণ বাড়ার আশংকা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

অপরদিকে নাটোর সদর হাসপাতালে ডেঙ্গু পরীক্ষার কীট সংকট দেখা দেয়ার আশংকা রয়েছে। ঢাকা থেকে সদর হাসপাতালে মোট ১২০ টি কীট বরাদ্দ দেয়া হলেও তা প্রায় শেষের দিকে। নতুন করে কীট বরাদ্দ না হলে ডেঙ্গু নির্ণয়ে সমস্যার সৃষ্টি হবে।

নাটোরের সিভিল সার্জন আজিজুল হক বলেন, গোটা জেলার জন্য কীট বরাদ্দ পাওয়া গেছে ১২০টি। শরীরে জ্বর হলেই মানুষ ডেঙ্গু ভেবে হাসপাতালে ছুটে আসছেন দলে দলে। মেডিসিন ও শিশু বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের পরামর্শ ব্যতিত ডেঙ্গু নির্নয় করা হচ্ছেনা। হাসপাতালে ১০ জন রোগীর ৫ জন শনিবার হাসপাল ছেড়ে বাড়ি চলে গেছেন। সিংড়ায় এক ডেঙ্গু রোগী সনাক্ত হয়েছে। সে ঢাকা থেকে এসেছে। স্থানীয়ভাবে কেউ ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হওয়ার তথ্য পাওয়া যায়নি।

উপরে