আগুন সন্ত্রাসীদের জয় দেখতে চাই না : রাজশাহীতে শাহরিয়ার

আগুন সন্ত্রাসীদের জয় দেখতে চাই না : রাজশাহীতে শাহরিয়ার

প্রকাশিত: ২১-১০-২০১৮, সময়: ১৯:৩৭ |
Share This

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিশিষ্ট লেখক ও সাংবাদিক শাহরিয়ার কবির বলেছেন, আমরা একটি রাজাকার মুক্ত সংসদ চাই। একাত্তরের ঘাতক, ২১ শে আগস্টের ঘাতক, বঙ্গবন্ধুর ঘাতক ও তাদের সহযোগীদের আমরা সংসদে দেখতে চাই না। আগামী সংসদ নির্বাচনে আমরা আগুন সন্ত্রাসীদের জয় দেখতে চাইনা। রাজশাহীতে অনুষ্ঠিত একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রবিবার বিকেলে একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির রাজশাহী মহানগর সভাপতি ভাষা সৈনিক আবুল হোসেনের সভাপতিত্বে নগরীর লক্ষীপুর মোড়ে ‘আমার ভোট আমি দেব, দেখে-শুনে-বুঝে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে দেব’ শীর্ষক স্লোগানে এই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে সংগঠনটির কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার কবির আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু চেয়েছিলেন একটি রাষ্ট্র। যেটা ধর্মনিরপেক্ষ হবে। সেজন্য বঙ্গবন্ধু ড. কামালকে নির্দেশ দিয়েছিলেন যুদ্ধাপোরাধীদের দল একাত্তরের ঘাতক জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধ করে সংবিধান প্রণয়ন করতে। আজ সেই ড. কামাল হোসেনই ক্ষমতার লোভে সেই একাত্তরের ঘাতকদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছে। যারা ২১ শে আগস্টের ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছে। তাই আপনারা সজাগ থাকুন ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে, মাঠে মাঠে এই ঘাতক ও তাদের সহযোগীরা যেন সংসদে ঢুকতে না পারে।

তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে চলছে। এখন বিশে^র অনেক দেশের কাছেই বাংলাদেশ রোল মডেল। যে পাকিস্তান বাংলাদেশকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল, তারাই আজ বাংলাদেশকে উন্নয়নের রোল মডেল মানছে। তাই এই অগ্রযাত্রা অব্যহত রাখতে শেখ হাসিনাকে আবারও ক্ষমতায় দেখতে চাই।

সমাবেশের প্রধান বক্তা হিসেবে নিরাপত্তা বিশ্লেষক ও কমিটির উপদেষ্টা মেজর জেনারেল (অব:) আবদুর রশিদ বলেন, আমরা এদেশে কখনোই মৌলবাদের রাজনীতি দেখতে চাই না। আমরা চাই অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে সবার সমান অধিকার। আজ নারীরা মাথা উচু করে দাঁড়িয়েছে, কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দেশের উন্নয়নে অবদান রাখছে। এই সমান অধিকার সমুন্নত রাখতে হবে। তাই আপনার দেশ আপনার হাতেই রাখুন, সজাগ থাকতে হবে যেন তা মৌলবাদীদের হাতে না যায়।

সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন রাবির সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. আব্দুল খালেক, সাবেক উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ নূরুল্লাহ, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির কেন্দ্রীয় সহ-সম্পাদক উপাধ্যক্ষ কামরুজ্জামান, রাজশাহী জেলা শাখার সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহজাহান আলী বরজাহান, মহানগর মহিলা পরিষদের সভাপতি কল্পনা রায়, নগর আওয়ামী লীগ সহসভাপতি শফিকুর রহমান বাদশা প্রমুখ।

আরও খবর

  • ‘মাদক ও ইভটিজিং মুক্ত প্রতিষ্ঠান হবে মোহনগঞ্জ ডিগ্রী কলেজ’
  • ‘বিএনপি-জামায়াতের জন্যই গণহত্যার স্বীকৃতি মেলেনি’
  • ‘স্বাধীনতার সুফল পেতে শুরু করেছে দেশবাসী’
  • স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে হামলা, ২০ শিক্ষার্থী আহত
  • ফুল দিয়ে ফেরার পথে বিএনপি নেতাদের ওপর হামলা
  • স্বাধীনতা দিবসে বিএসএফের জন্য বিজিবির মিষ্টি
  • শিশুরাই উন্নত সোনার বাংলা গড়বে : প্রধানমন্ত্রী
  • পিছিয়ে যাচ্ছে ৪০তম বিসিএস প্রিলির তারিখ
  • স্বাধীনতা দিবসে মেয়র লিটনের নেতৃত্বে বর্ণাঢ্য মিছিল
  • ফতুল্লায় ডাইং কারখানায় ভয়াবহ কেমিক্যাল বিস্ফোরণ
  • রাজশাহীতে স্বাধীনতা দিবস উদযাপন
  • জাতীয় স্মৃতিসৌধে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
  • স্বাধীনতা দিবসে সড়কে প্রাণ গেল ২ স্কুলছাত্রীর
  • আজ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস
  • মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অধ্যক্ষসহ ১৪ জনকে দুদকে তলব



  • উপরে