পর্যটনে অভাবনীয় সাফল্য, প্রতিবছরই বাড়ছে বিদেশীদের আগমন

পর্যটনে অভাবনীয় সাফল্য, প্রতিবছরই বাড়ছে বিদেশীদের আগমন

প্রকাশিত: ২৬-০৯-২০১৯, সময়: ১৯:৩৩ |
Share This

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : বাংলাদেশে গত পাঁচ বছরে বিদেশী পর্যটকদের আগমন বেড়েছে। আর পর্যটন খাত বাংলাদেশের অর্থনীতিতেও বেশ অবদান রাখতে শুরু করেছে। গত পাঁচ বছরে বাংলাদেশের পর্যটন শিল্প জিডিপিতেও গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা রেখেছে। তাই এ খাতের দিকে বর্তমানে বিশেষ নজর দিচ্ছে সরকার। এ খাতকে আন্তর্জাতিক মানের করে গড়ে তুলতে প্রায় ৩০০ কোটি টাকা ব্যয় করার পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, ২০১৪ সালে ০.০১৬ মিলিয়ন, ২০১৫ সালে ০.১৪ মিলিয়ন, ২০১৬ সালে ০.২০ মিলিয়ন, ২০১৭ সালে ০.২৬ মিলিয়ন এবং ২০১৮ সালে ০.২৭ মিলিয়ন পর্যটক বাংলাদেশে ভ্রমণের উদ্দেশে এসেছেন। এ চিত্র গতানুগতিক প্রতি বছর বেড়েই চলছে।

এদিকে চলতি বছরেও বাংলাদেশে পর্যটক আসার হার বেড়েছে। এবছর জানুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত অর্থাৎ সাত মাসে বাংলাদেশ ০.২০ মিলিয়ন পর্যটক বেড়াতে এসেছে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, শীতকাল আসার আগেই এ চিত্র দেখা গেছে। শীত এলে বাংলাদেশে পর্যটক আসার হার আরও কয়েকগুন বেড়ে যাবে।

এ প্রসঙ্গে আলাপকালে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সচিব জুমবাংলাকে বলেন, বাংলাদেশের পর্যটন খাতকে আন্তর্জাতিক মানের করে গড়ে তুলতে আমাদের বেশ কিছু কাজের পরিকল্পনা ছিলো যা আমরা এখনও অবধি শেষ করতে পারিনি। তবে পর্যটন নিয়ে ইতোমধ্যে আমাদের কাজে গতি আসা শুরু করেছে।

পরিকল্পনা বাস্তবায়নে অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহের মধ্যে একটি ফার্মকে কাজের নির্দেশ প্রদান করা হবে উল্লেখ করে তিনি আরও জানান, আমাদের সেরা পর্যটন কেন্দ্র গুলোতে প্রয়োজনীয় সুবিধার দেওয়ার পাশাপাশি চলাফেরা করার রাস্তার উন্নয়ন করা হবে।

এসব উন্নয়ন রক্ষাবেক্ষণেও আমাদের বিশেষ নজর দেয়া জরুরি। এসব কথা চিন্তা করেই পর্যটন খাতের পিছনে প্রায় ৩০০ কোটি টাকা ব্যয় করার পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার।

Leave a comment

উপরে