মাদকমুক্ত বিনোদপুর গড়তে মানববন্ধন কর্মসূচি

মাদকমুক্ত বিনোদপুর গড়তে মানববন্ধন কর্মসূচি

প্রকাশিত: ১২-০৬-২০১৯, সময়: ১৭:৪৮ |
Share This

নিজস্ব প্রতিবেদক, শিবগঞ্জ : চাঁপাইনবাবগঞ্জের সীমান্তবর্তী শিবগঞ্জ উপজেলার বিনোদপুর ইউনিয়নকে মাদকমুক্ত সমাজ গড়তে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে এলাকাবাসী। সচেতন নাগরিকের ব্যানারে বুধবার দুপুরে বিনোদপুর বাজারে ঘণ্টাব্যাপি মানববন্ধনে এলাকার নারী-পুরুষসহ বিভিন্ন পেশার মানুষ অংশ নেয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি শামিম রেজা, উপজেলা যুবলীগের সহসম্পাদক আতাউর রহমান সুমন, বিনোদপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ইসমাইল, ছাত্রলীগ নেতা রতন সাহা, মাসুম আলী, সাহেব আলী ও মামুনের স্ত্রী মৌসুমি খাতুনসহ অন্যরা। মানববন্ধনে বক্তারা বলেন- গত ৮ জুন বিনোদপুর বাজার হইতে পুলিশের হাতে আটক বিনোদপুর ইউনিয়নের চাঁদশিকারী গ্রামের সানাউল্লাহ্ মাষ্টারের ছেলে মামুনের ষড়যন্ত্র মুলকভাবে মাদক মামলার সঠিক তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান। একই সঙ্গে মাদকমুক্ত বিনোদপুর গড়ার লক্ষে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপারসহ সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেন।

বক্তারা অভিযোগ করে আরও বলেন- প্রতিদিন শত শত মোটরসাইকেল যোগে বিভিন্ন এলাকার মাদকসেবীরা বিনোদপুর বাজারে এসে মাদক সেবন করে এলাকার পরিবেশ নষ্ট করছে। ফলে স্থানীয় স্কুল-কলেজের ছাত্ররাও জড়িয়ে পড়ছে মাদক সেবন ও ব্যবসায়। অভিযোগ উঠেছে- শিবগঞ্জ থানা পুলিশ ও তাদের সোর্সদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে সাধারন মানুষ। বিভিন্ন সময় মাদক ব্যবসায়ীরা ফেনসিডিল ও ইয়াবা নিয়ে ধরা পড়লেও পুলিশ মোটা অঙ্কের টাকা নিয়ে ছেড়ে দিচ্ছে। ফলে আরও বেপরোয়া হয়ে উঠছে মাদক ব্যবসায়ীরা। পুলিশ মাদক ব্যবসায়ীদের আড়াল করে সাধারণ মানুষকে মাদক দিয়ে ফাঁসাচ্ছে ও আটক বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছে।

বক্তারা- মামুনকে নির্দোষ দাবি করে সঠিক তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত দোষীদের গ্রেফতারের দাবি জানান। একই সঙ্গে মামুনের নি:শর্ত মুক্তি দাবি করেন। প্রসঙ্গত, গত ৮ জুন সকাল ১১টার দিকে বিনোদপুর বাজার সংলগ্ন হাসপাতালের পার্শে আমবাগানে মামুন তার নীল রংয়ের মটর সাইকেল রেখে অন্য জায়গায় বন্ধুদের সাথে আলাপ করছিল। এ সময় শিবগঞ্জ থানার এসআই মুকুল চন্দ্র সঙ্গীয় ফোর্সসহ মটর সাইকেলে ইয়াবা থাকার সন্দেহে মামুনকে আটক করে। এতে মটর সাইকেল তল্লাশি করে ১০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার দেখান। পরে আটক মামুনসহ এলাকার শতাধিক মানুষ ঘটনাটি ষড়যন্ত্র মূলক বলে দাবি করলেও পুলিশ তা কর্ণপাত না করে মামুনকে মাদক মামলায় কোর্টে চালান দিয়ে জেলহাজতে প্রেরণ করেন বলে স্থানীয়রা জানান।

উপরে